Sakina khatun’s Biography

বাংলাদেশের অন্যতম কিংবদন্তী শিল্পপতি শেখ আকিজ উদ্দিনের সহধর্মিনী সকিনা খাতুন। স্বশিক্ষিত সকিনা রত্নাগর্ভা। পেছনে পড়া গ্রামে বসবাস করেও নানা প্রতিকুলতার মধ্যে তিনি সন্তানদের লেখাপড়া শিখিয়েছেন। মানুষ করেছেন। অভাবের ঝড়-ঝাপটা থেকে সন্তানদের রক্ষা করেছেন। গৃহস্থ বাড়িতে ঢেঁকি পাড় দিয়েছেন। কঞ্চি কেটে কলম বানিয়ে সন্তানদের হাতে তুলে দিয়েছেন। অন্যের মুখাপেক্ষী না হয়ে শাকসবজি চাষ করে হাঁস-মুরগি পুষে স্বাবলম্বি হয়েছেন। নিজের পায়ে দাঁড়িয়েছেন। ১৯৩৯ সালে খুলনার ফুলতলার, অজপাড়াগাঁ মধ্যডাঙ্গায় জন্ম নিয়ে এই মহীয়সী নিজের আলোয় আলোকিত হয়ে পাঁচ সন্তানকে উদ্ভাসিত করেছেন। দুটির বেশি তিনটি শাড়ি কোনদিন পরতে পারেননি। রঙিন ঝলমলে মালা শাড়ি, টিস্যু শাড়ি তিনি চোখে দেখেছেন। কিন্তু হাত দিয়ে দেখার সৌভাগ্য হয়নি। প্রেম, ভালবাসা, স্নেহ, মমতা আর সাহসকে পুঁজি করে সংগ্রামী এই নারী তাঁর স্বপ্নকে বাস্তবায়িত করেছেন। মা হয়েছেন। এমনকি ‘বড় মা’ হয়েছেন। এই বড় মা’র উৎসাহ, উদ্দীপনা আর বুদ্ধি পরামর্শে শেখ আকিজ উদ্দিন একের পর এক শিল্প কারখানা গড়ে তুলেছেন।
রত্নাগর্ভা এ মায়ের সকল সন্তানই সফলতার স্বাক্ষর রেখেছেন তাদের কর্মজীবনে।

ডা. শেখ মহিউদ্দিন সকিনা খাতুনের বড় ছেলে। মধ্যডাঙ্গা গ্রামে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া করেছেন। খুলনার বিএল কলেজ থেকে বিএসসি পাশের পর তিনি বরিশাল মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস ডিগ্রি অর্জন করেন। এরপর তিনি কিছুদিন সরকারি চাকরি করেছেন। এক পর্যায়ে চাকরি ছেড়ে আদ্-দ্বীনের সঙ্গে যুক্ত হন। বর্তমানে তিনি আদ্-দ্বীনের নির্বাহী পরিচালক। আকিজ গ্রুপের চেয়ারম্যান।

শেখ মোমিন উদ্দিন সকিনা খাতুনের মেঝ ছেলে। তিনি গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া করেছেন। রাজঘাট জাফরপুর হাইস্কুল থেকে এসএসসি পাশ করেন। খুলনা বিএল কলেজ থেকে বিএসসি পাশ করে ইংল্যান্ডে যান। সেখানকার নর্থ হ্যামটন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে লেদার টেকনোলজিতে উচ্চতর ডিগ্রি অর্জন করেন। আশির দশকে মোমিন উদ্দিন অভয়নগর উপজেলার তালতলার পরিত্যক্ত এসএএফ চামড়া কারখানার দায়িত্ব নেন। এরপর তিনি রুগ্ন ঐ কারখানাটিকে আধুনিকীকরণ করে দেশের শ্রেষ্ঠ চামড়া কারখানায় পরিণত করেন। ২০০৯, ২০১০, ২০১১ সালে চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য বিদেশে রপ্তানির জন্য তিনি জাতীয় রপ্তানি ট্রফি (স্বর্ণ) অর্জন করেন। মোমিন উদ্দিন এই চামড়া কারখানার ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং আকিজ গ্রুপের অন্যতম পরিচালক।

সকিনা খাতুনের বড় মেয়ে সাফিনা আখতার। সন্তানদের মধ্যে তিনি তৃতীয়। সাফিনা একজন গৃহিনী। তিনিও মধ্যডাঙ্গা গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া শিখেছেন।
শেখ আফিল উদ্দিন সকিনা খাতুনের ছোট ছেলে। তিনিও মধ্যডাঙ্গা গ্রামে মানুষ হয়েছেন। গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া করেছেন। তিনিও একজন শিল্পপতি। বর্তমানে তিনি গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের একজন সংসদ সদস্য। তিনি আফিল গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

সকিনা খাতুনের ছোট মেয়ে শাহিনা আখতার। মধ্যডাঙ্গা গ্রামে তার জন্ম। গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষার হাতে খড়ি। পরবর্তীতে তিনি পুষ্টিবিজ্ঞানে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন। লেখাপড়ার শেষে তিনি কিছুদিন চাকরিও করেছেন। বর্তমানে তিনি একজন গৃহিনী।